যে কারণে মাদ্রাসা বন্ধ করে আন্দোলন করবেন শিক্ষকরা - protidinislam.com | protidinislam.com |  
জাতীয়

যে কারণে মাদ্রাসা বন্ধ করে আন্দোলন করবেন শিক্ষকরা

  প্রতিনিধি ২২ মে ২০২৩ , ৫:৫৭:১০ প্রিন্ট সংস্করণ

Spread the love

ইসলাম ডেস্ক: আট দফা দাবি পূরণ না হলে সব মাদ্রাসা বন্ধ করে আন্দোলন করবেন শিক্ষকরা। একই সাথে মাদ্রাসার প্রথম সাময়িক পরীক্ষা নেওয়া হবে না বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসার শিক্ষকরা।

সোমবার (২২ মে) আট দফা দাবি আদায়ে দ্বিতীয় দিনের মতো অবস্থান ধর্মঘট পালনকালে এসব কথা বলেন আন্দোলনরত শিক্ষকরা।

স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসা শিক্ষক ঐক্যজোটের ব্যানারে গতকাল রবিবার থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন তারা।

ঐক্যজোটের মুখপাত্র এস এম জয়নুল আবেদীন জেহাদী বলেন, আমাদের দাবি পূরণ না হলে আগামী প্রথম সাময়িক পরীক্ষা আমরা নেব না। প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়ে আমরা সব শিক্ষকরা মাঠে আন্দোলন করবো। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে।

তিনি আরও বলেন, গত বছর শিক্ষামন্ত্রী আমাদের ওয়াদা করেছেন দুটি বিষয় (উপবৃত্তি এবং বেতন জাতীয়করণ) তিনি অতি দ্রুত সমাধান করবেন। তখন তিনি চার মাসের সময় নিয়েছিলেন। কিন্তু আজ প্রায় আট মাস হয়ে যাচ্ছে এটার কোনও সমাধান এখনও হয়নি। ফলে সুনির্দিষ্ট কোনও নির্দেশনা না পাওয়ার কারণে আজ আমরা এই অবস্থান কর্মসূচি পালন করছি।

আন্দোলনরত শিক্ষকদের আট দফা দাবিগুলো হলো—

১. বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড থেকে রেজিস্ট্রেশনপ্রাপ্ত সব স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রুসা প্রাইমারি স্কুলের মতো জাতীয়করণ করতে হবে।

২. প্রাইমারি শিক্ষার্থীদের মতো স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রুসা শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তিসহ সব সুযোগ-সুবিধা দিতে হবে।

৩. বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড থেকে রেজিট্রেশনপ্রাপ্ত কোড বিহীন মাদ্রাসাগুলোকে অবিলম্বে কোড নম্বরের অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

৪. প্রাইমারি শিক্ষকদের মতো স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসার শিক্ষকদের পি.টি.আই ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে।

৫. প্রাইমারি শিক্ষকদের মতো স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসার চতুর্থ শ্রেণির পদ সৃষ্টি করতে হবে।

৬. প্রাইমারি শিক্ষকদের মতো স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসাগুলোকে স্থায়ী রেজিস্ট্রেশনের ব্যবস্থা করতে হবে।

৭. প্রাইমারি শিক্ষকদের মতো স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসারগুলোকে ভৌত অবকাঠামো নিশ্চিত করতে হবে।

৮. শিক্ষার নীতিমালা-২০১৮ এর জনবল কাঠামো সংশোধন করতে হবে।

আরও খবর

Sponsered content

ENGLISH